Monday, 25 October 2021

Special edition...

 
Weekly bilingual 
Web Magazine



Editor. Nihar Ranjan Das
Siliguri - Darjeeling 
West Bengal - India.

Editorial and coordinator team of Ghorsowar .....




 Poet. Marlene Pasini 
    ( Mexico )



Poet.
Gitan Alice lleana 
   ( Romania)



Miroslava Panayotova, (Bulgaria)


Poet.
Concetta Melchiond  (Italy)


Poet.
Carmen Silva
( Romania )


Poet.
Mala Chakraborty (India )

Poet.
Madhu Gangopadhyay, 
( India ).

Poet.
Purbasha Mondal 
( India )


Poet.
Kakoli Ghosh
(moon) ( India)


Poet.
Gerlinde Staffler (Italy)



Poet.
MonjuGhosh
Choudhury (India) 





Radio Artist
Smita Gupta Biswas , (India )



Artist 
Sujata Ghosh Roy . ( India )


Poet.
Kaushik
Chakraborty
   ( India )


Poet.
 
Sanjita Das laskar( India)





Poet.
Subrata 
Roychoudhury
 ( India )


Poet 
Sujit Baksi
 ( India )




Poet.
Oveek kr.Dey
  ( India )



Poet
Shipon Sohag 
( Bangladesh )










Kakoli Ghosh (Moon Drops)
      ( India )


DESTINY

Kill me secretly as dementia kills memory,
play my pains with the melody of your flute,
save the pearls of my frozen tears,
for the talisman to protect truth;
let the future wait for my forgetfulness
as stars wait for darkness.








আলোলিকা

স্বপ্নবিলাস

তুমি নেই .... 
স্পর্শেও নেই
দৃষ্টিতেও নেই

শুধু স্মৃতিতে,নীলরঙা হাসিতে
যেখানে প্রতীক্ষারত আলো আর বায়ুর
 প্রত্যাশী একমুঠো স্বপ্নবিলাস....








শম্পা সাহা

ঘর

সব নদীরাই মেঘ  পেরিয়ে বাইলে দখিণ পানে
মিলতো ঠিকই সাগরে।কে বা না তা মানে!
সব নদী কি ডানায় ভাসতে জানে
জানে ?থামতে হয় ঠিক ঠিক কোনখানে?
সবাই ঠিক সবটা জানলে পর
হয় না কেন সবার বাঁধা ঘর!








দীপা সরকার

তুমি শান্ত নদী

তুমি যে এক বিরল হাহাকার এর কথা বলছ
যা তোমার ভিতর অহরহ বয়ে চলছে,
তার আগুন নিভে গেলে,
তুমি তখন এক সভূমির শান্ত নদী।

তোমার বুক তখন এক মহীরুহ
যেখানে আশ্রয় নেয় আমার অনুভূতির সব পাখি।
পাপ পূণ্য গুলো উড়ে যায় খর কুটোর মত।

আমি মৃত্যুকে ঘৃনা করে হয়ে উঠি
তোমার অরণ্য প্রেমিকা।
তোমার ঠাণ্ডা স্রোতে ভেসে বুঝতে পারি,
ভালোবাসায় ডুব দিলে বেশি সুখ।

তখন তোমার,
রুক্ষ ঠোটে আদর বসিয়ে দীর্ঘনিশ্বাস ঠেলে
আমার শিরায় শিরায় জেগে ওঠে রোমাঞ্চকর এক বিদ্রোহ।








সুপম রায় 

ফার্স্ট ডোজ
 
এই মহাবিশ্বের কোণঠাসা অন্ধকারে ডুবে আছে
একটা দেশ - সমুদ্র - সূর্য।
জাতকের তর্জনী জ্বলে ওঠে আলোতে,
মাতৃছায়ায় প্রোথিত থাকে তার সুনীল ভবিষ্যৎ।

জীবনের দশ ফুট নীচে 
অন্তরার সুরে মেতে ওঠে ভৈরবী ---
পাহাড়ি কবজ খুলে খাদের সীমান্তে এসে দাঁড়ায়
প্রত্যেকটা রিটায়ার্ড হার্ট।

অভিশপ্ত জীবনের উল্লাসে
           লিফলেট বিলি করে চলা 
                          সদ্য চাকরি হারানো যুবক
আজ ব্লু পিরিয়ডের সংকেত পেয়ে
সে-ও আজ স্বপ্ন কিনতে শেখে দু-চোখের দামে।








বিউটি সাহা

একটি মেয়ে ও জীবন

যত সাগর দীঘি আর নদীর জল,
সবার থেকে  সুন্দর তুমি সবচেয়ে
তাই নিজেকে ফেলনা কোরো না
 মেয়ে।
বাবা মায়ের চোখের মণি তুমি
তাঁদেরও   তুমি সবসময় চোখে 
হারাও,
তবুও কখনও কখনও সারাটা
জীবন কেন
প্রবল  স্রোতের  টানে বয়ে যাও!

কে তোমায় বলপূর্বক কাছে টানলো,
নাকি তোমার হৃদয় ই হার মানলো?
কে রেখেছে তার হিসাব অথবা গেছে
ভুলে,
কিন্তু বারবার নিজেকে কেন  তুমি
ভুল  করে  অপাত্রে  সঁপে  দিলে!!







অমিতাভ সরকার
মনের কথা
পথের চলায় পথেই দেখা,
আপনি-কাছে আপনি শেখা।
সবাই আমরা পথ চলে যাই,
দুঃখে সুখের আবেগ মেশাই।
স্নেহ যৌগ মেলা-মেশায়
শ্রদ্ধা সেটা নতুন মেশায়।
আপনারাই আজ অনুঘটক,
যৌগ মৌলে এ রাজযোটক।
সবাই সবার মনের ঘরে,
সুস্বাস্থ্যটাই চিন্তা করে।
কবির দলে একলা চলা,
পাগলামিটাই লেখায় বলা,
বিশ্বপাগল নিঃস্ব-প্রেমে
বেশিই দেখাই হ্যাংলামি।






Luminița Olteanu 
(Lumy Lmk)
 ( Romania )

Cine sunt eu? 

Sunt mâna ce te prinde când ți-e greu, 
Sunt zâmbetul ce il visezi mereu
Sunt visul cald al unei nopți de vară,
Sunt umărul pe care-ți lași povară
Dureri și doruri, sufletului rană, 
Sunt degetul fragil ce-ți șterge lacrima din geană. 

Who am I ?
I'm the hand that catches you when it's hard for you, 
I'm the smile you've always dreamed of 
I'm the hot dream of a summer night, 
I'm the shoulder on which you leave your burden
Of pains and longings, wound of soul, 
I'm the fragile finger wiping the tear from your
eyelash. 

Luminița Olteanu (Lumy Lmk)






Gracheva Natalia
    ( Moscow )

Today the leaves are all gone
The quiet trees are transparent 
And the wind doesn’t live in the sky anymore 
I’m sending you in an envelope 
A maple leaf crucifix

( In Russian )

Сегодня листья облетели.
Деревья тихие прозрачны.
И ветер в небе не живет.
Я опущу тебе в конверте
листа кленового распятье.







শুভঙ্কর চট্টোপাধ্যায় 
নিরুদ্দেশপর্ব-৩
সেদিন ছিল ওলটপালট হাওয়া
ওপার থেকে নিরুদ্দেশের ডাক,
ফোন বলেছে কোথাও হবে যাওয়া-
মন বলেছে কথা গোপন থাক। 

হাওয়ার পিঠে সওয়ার হয়ে আমি
দেখেছিলাম কলেজবেলার দিন,
শ্রাবণমেঘ ওড়না ছিল দামি
বাইক আজও স্বীকার করে ঋণ। 

যাবার পথে সন্ধে নেমে এলে
স্পর্শদোষ মার্জনীয় বুঝি
একলা পথে গলায় সুর পেলে
আজও সেসব মূহুর্তকে খুঁজি। 

ফেরার পথ আবেশমাখা স্বরে
বন্ধু নয়,অনেক বেশি ঘন
বলতে চেয়ে ছিল নিরুত্তরে
যেসব কথা বলিনি কক্ষনো।





落葉    陳明克( 台灣)

陰暗的山徑
垂死的落葉
不知被雨打落
在祈求的陽光中醒來

看不見同伴
呼喚著

Ming-Keh Chen ( Taiwan )

A Fallen Leave      

On the dark hill trail
a dying leave doesn’t know
it was beaten down by the rain
It wakes up in the sunshine, it prayed

It can’t find its friends
It is calling






পরাগ ভট্টাচার্য্য
বিচিত্র রাস্তা
রাস্তা দিয়ে চলতে চলতে
কখনো টালিতে বা কংক্রিটে বাঁধানো ফুটপাতে, 
কোথাও জমা জল বা গর্ত পেরিয়ে
অবশেষে নিশ্চিন্ত, গন্তব্যে পৌঁছে। 

জীবনের পথটাও একইরকম, ভুলিনা যেন
নিরাশা নয়, বেশি আশাই বা করা কেন!





সোমনাথ দত্ত
কিজানি বৃষ্টির কি হলো
বৃষ্টি জমা রাস্তায় পড়ে আছে নষ্ট কদম ফুল।
কাঁচা বাঁশের বাঁশিতে টুপটাপ শিশির পড়ার শব্দ।
যে ফুল তোমায় দেবো বলে শুকিয়েছে ডাইরির পাতায়..
সেই ফুলের গায়ে তোমার গোপন প্রজাপতির হলুদ কাঁচা রং এঁকে রাখি।
যে মেয়েটিকে একদিন শ্মশানের ফুলের দোকান থেকে ছেলেটি একটি ফুল কিনে দিয়েছিল।
দীর্ঘ সম্পর্ক ভাঙার পর সেই মেয়েটি আজও একবারও কাঁদেনি।
কি জানি আজ বৃষ্টির কি হলো?
হয়তো পৃথিবীর সব রাত জাগা শুষ্ক ,জ্বালা ধরা চোখ গুলোর জন্য সে ভোর থেকে ঝরে চলেছে অবিরাম।।





Chen Hsiu-chen 陳秀珍(Taiwan)   


我願意(Taiwanese) 

我願意
在秋尾天為你火燒
予你紅色的溫暖

不過你愛的是
皆片春天的樹林

我只不過是一叢孤單的楓仔樹


I Will

I will
burn myself in late autumn 
providing you a reddish warm

But you rather want
a whole forest in spring time

while I am just a maple tree alone

(Translated by Lee Kuei-shien)





সৌম্য পাল
মনের ক্যানভাসে                                                                          তোমার নামেই সীমান্ত ঘেঁষে উড়িয়ে দিলাম ইচ্ছে ঘুড়ি, 
মৃত্যু ছুঁয়ে মৃত্যুঞ্জয়, তোমার কাছেই আবার ফিরি।                  আঁজলা ভরা আদর জলে,তপ্ত মরু ভিজতে নারাজ,
 হড়পা বান আনছো ডেকে, প্রেমিকা তুমি বেপরোয়া আজ?
 ভাঙ্গছে আগল, ভরা প্লাবন, বাঁচতে চাইছো শীৎকারে,
 ঠোঁটের ওমে জমছে আদর,  ঘাড়ে নামছে চুপিসারে ৷ 
শরীর যখন ক্যানভাস, আর জিভে যখন তুলির টান,  
নেশায় ডুবছে পিপাসু হৃদয়, চোখে আদিম সম্মোহন ।
 তোমার স্পর্শে পুড়ছে শরীর, জাগছে আদিম অনুরণন, 
পারদ মাপছে উষ্ণতাদের সমস্ত ব্যর্থ বিশ্লেষণ।।






Serghiescu Cristina
    ( Romania )

I'm a late tear, 
in a flickering dream, 
I grow a flame of joy,
in a soul too hungry,
I shout in the bell of silence, with echoes of the word .

Sunt o lacrimă târzie,
într-un fir de vis plăpând,
cresc un jar de bucurie,
într-un suflet prea flămând,
strig în clopot de tăcere,
cu ecouri din cuvânt .





তপন কুমার তপু 
তপতী 
পৃথিবী ক্রমে ক্রমে আলোকিত হলো, ভূমিষ্ট হলো সব পৃথিবীর সুখ,
আত্মজা তুমি ভোরের আলোর মত জন্ম নিলে ভরলো জগতের প্রাণ,,
সূর্যের কন্যা তুমি মেধাবী যুগান্তরের নব সভ্যতা সমান।
পরিতৃপ্ত হলোএজগত- ধ্যানে জ্ঞানে বিদুষী তুমি, জ্ঞানের সিন্দুক।। 

সূর্যের তির্যক গতি -পৃথিবীর আলোর স্তম্ভ অন্তহীন চেতনায় ভরা , 
প্রান্তহীন আকাশের অপরুপ সীমানাহীন বিদুষী চঞ্চলা,, 
অমল আলোর প্রাগৈতিহাসিক রূপরেখা শ্রেষ্ঠা চলা ও বলা। 
ধরিত্রী ধরনীর তুমি - সূর্য জ্যোতিস্ক আলো জগতে অধরা।।

তুমি তো জ্ঞানের সাগর- শান্ত প্রশান্তির জলে ভরা দুই কুল,
সূর্য বৃত্তের মত- সৌন্দর্যের আত্ম প্রত্যয়ে দশভুজা জগত কল্যানে,,
পৃথিবী ও মানুষ - মমতায় সুখান্বিত- অভিভূত মনে ও প্রাণে।
তপন  তনয়া তুৃমি- তপতী- জগতের কাননে,সুবাসিনী গরবিত ফুল।।







Tanja Ajtic

( Canada )

Mirror

In the mirror
the outline of my face
I do not know him.
Still life on the table
dried flowers.
I see my world now.

Ogledalo

U ogledalu 
obris moga lica
ne poznajem ga.
Na stolu mrtva priroda
osušenog cveća.
Ja sada vidim moj svet.







সৈকত মজুমদার

তোমাকে ভেবে 
    
আমি তোমাকে ভালোবেসে ফেলেছি
একথা বহুবার বলেছি, আর তুমি
এটা প্রেম নয় মোহ বলে সরে গেছ।  
তবুও তোমাকে ভেবে রোজ রাতে
কবিতা লিখতে বসি, কিন্তু 
লেখা আর শেষ হয় না আমার।  

তোমাকে সাদা কাগজে অনেক যত্নে
রঙিন পেনসিল দিয়ে আমি আঁকি,
তোমার আকর্ষণীয় জুলপি আর
মসৃণ গ্রীবার তিল কাছে টানে আমায়। 
হঠাৎ করে উঁকি দেয় চওড়া কাঁধে
তোমার অন্তর্বাস এর লাল ফিতে !
উন্মুক্ত আলতা রাঙা পায়ের নূপুর
তোমার প্রতি দুর্বল করে তুলে আমায়।








Tamikio L. Dooley


Mother Nature 

Seasons change at the hand of  mother nature. 

Just a wisp of the wind may change the heart. 

If the heart is at peace, mother nature accomplished its journey. 

If the heart is troubled, let it find its way. 

Just a wisp of the wind may change the heart. 

And if even so, let the heart not become trouble, seasons change at the hand of mother nature.








বিজলী সাহা

নীরব ঘুমের চোখে

বুকের শব্দ চিনে নেয় নিশ্বাসের গতি
একপা একপা করে  এগিয়ে যেতেই ভাত ঘুম ততই গভীর হয় হতাসার চোখে।
রাতের আকাশ জেগে থাকে বিষন্নতার 
অশ্রু সজল চোখে।
তবু আশা জাগে বুকে নদী বয় নীরবে,
মাটির আলো জ‍োছনায় হাত বাড়ায়।
কি সুখে?
কি সুখে রাত জাগে জোনাক?
ভেঙ্গে যাওয়া পাজরে তিল তিল জমে আছে শ্বেত রক্ত কনিকা।
ফুসফুসের বিষাক্ত বায়ু বয়ে চলে ঘুম হীন সারা অঙ্গে।
পথ জানা নেই তবু চলে বাসনার চরণ।








Paula Cristina Conceição 
      ( Portugal )

THE HAPPINESS

 THE HAPPINESS
 IT DOESN'T HAVE A SITE OR PLACE
 DOESN'T NEED A LARGE SPACE
 ONLY THE HEART
 AND IT IS IN THE PALM OF THE HAND
 AND IN YOUR IMAGINATION








সুস্মিতা এস দেবনাথ 

উৎকীর্ণ নিদর্শন
 
একটি সুফলা ক্ষেতের অপেক্ষায়
জীবনের  ছান্দিক স্বপ্নে  ঘর বাঁধে
প্রাণের প্রতিটি নির্বোধ -স্বরলিপি;
প্রহরান্তে ফিকে  হয়ে যায় !

অথচ আমার হাতের খোলাপাতায় 
যে মুখ দেখি তার তুলনা সে নিজেই।
উপমার সকল উপাদান তুচ্ছ
অবয়ব শুধু,
কে উৎকীর্ণ করেছে চন্দ্রমল্লিকার বন ?

দু'পায়ে চন্দন জোৎস্না নদী
দুটো চোখের নিয়ত দৃষ্টি পৃথিবীর
ভয়ঙ্কর খরতাপ,
বিদীর্ণ সুন্দর ঘরে 
রৌদ্রপোড়া মেঘের মতোই
মাটির বুকে অপ্রেমের বৃষ্টি।

আকাঙ্খিত শষ্যটি স্ফুরণের দীর্ঘ প্রতীক্ষায়
লৌহ দৃঢ় পাষাণ  প্রাচীরে মাথা খুঁড়ে বলে-
মুক্তি দাও মুক্তি চাই!

জঠরের অন্ধকূপে বন্দী 
অনির্বাণ মুক্তিকামী আলোর  সন্ধান!
অথচ দিশাহীন আলো
অন্ধকার গর্ভেই...

বিলীন হয় সৃষ্টির সুপ্তবীজ।









Eva Petropoulou Lianoy
     ( Greek )

To Be
Be my shadow
So i will be your Sun
Be my eternal love
So I will be your lover
Be my guided angel
So i will be your existence
Be my inner soul
So i will be your breath.. 

(Greek translation)

ΝΑ ΓΊΝΩ..

Nα γίνω η σκιά σου
Να γίνεις ο ήλιος μου, 
Να γίνεις ο έρωτας μου
Να γίνω ο παντοτινός σου σύντροφος,
Να γίνεις ο φύλακας αγγελος μου, 
Να γίνω η ύπαρξη σου,
Να γίνω η ψυχή σου
Να γίνεις η αναπνοή μου



 



তপা মজুমদার

একাকীত্ব 

হারানোর মাঝেই খুঁজি 
পেতে চাই- হারানো প্রেম,
প্রীতি ভালোবাসা যা কিছু
আমাকে করেছে নিঃস্ব;

আমি একা বড্ড একা রাতের 
দিনের পর দিন ভাবি-
কবে পাবো সব কিছু আগের মতোই

ভাবনায় যার নিত্য জ্বালাতন 
মনকে বিষিয়ে তোলে সময় সময়।

মন কি চায়?
দুঃখ নাকি সুখ!

দুর্বিষহ এ জীবন জোয়ার 
ভাঁটার দুর্বিপাকে একা আমি
বড্ড একা...








মৈত্রেয়ী ঘোষ

ধোকা
সূচিপত্র দেখেই যে থমকে গেলে--
মুহূর্ত যাপনের টুকিটাকি,
খুবলে খাওয়া বিচিত্র অনুভূতি,
এসব পড়ে দেখতে ইচ্ছে করে না!
এমন‌ও তো হতে পারে--
অক্ষরমালায় যে নামটি উল্লেখিত
বিশদ বিবরণে সেই নামটিতে ততটা
আলোকপাত করা হয়নি।
তাই, মূল্যায়নের আগে অন্তত একবার
তলিয়ে দেখে নিও জীবনের খুঁটিনাটি
'পদ্মলোচন' নামাঙ্কিত ব্যক্তি 
সবসময় তীক্ষ্ণ দৃষ্টি সম্পন্ন হয়না কিন্তু!
বিচার করা কি মুখের কথা!
অক্ষরও মাঝে মাঝে ধোকা দেয়, বুঝলে!!

কুশল মৈত্র
পর্নোগ্রাফি
ভোরের বাসি বিছানা চেয়ে আছে মিলনের ক্যানভাসের অন্তরালে 
আমন্ত্রণের ঠোঁটখানি প্রচ্ছন্ন যৌনতায় ধরা পড়েছে লাল ভেলভেটে 
অনুভূতিগুলো সূক্ষ্মাতিসূক্ষ্ম মনের অলিন্দে হ্যালোজেনের রেড লাইটে 
দিশাহীন পরীরা অদম্য আনন্দ আর উত্তেজনায় পরম্পরায় ছটফট করছে৷ 
সহমত সূচক অর্থপূর্ণ হাসি ঝরে পড়েছে গতকালের নিস্তব্ধ রাতে 
মেঘ সেখানে কোনো কথা বলেনি, চাঁদ চেয়ে ছিল অবিস্ময়ের শহরে 
ভালোবাসার ঘর তখন নির্লিপ্ত দহন অন্ধকারে পাপ-পুণ্যে আবদ্ধ
সময়ের কিছু বাড়তি ধুলো আর মালিন্যটুকু চেটে পুটে রসোস্বাদনে ব্যস্ত৷ 
খেলনার মতো গাড়িঘোড়া আর মানুষগুলো ইতস্তত ছুটে চলেছে 
অনেক প্রশ্নের মধ্যে উত্তর রয়েছে ঠিকই কিন্তু জিজ্ঞাসায় ভয় হয় 
রাত্রি তুমি কেমন করে যৌনতা না পর্নোগ্রাফি সহজেই অনুমেয় হয়ে ওঠো 
আর ভোরের অস্পষ্ট ভাব ফুটে উঠেছিল যে মেয়েটির মুখ আয়নায় 
তা স্পষ্ট গুঞ্জনের ভালোবাসার ঢেউ হয়ে বৃত্তাকারে ছড়িয়ে পড়েছে ক্রমশ


অরিন
রবিবাবু
জন্ম নেবে নতুন করে  ?
মরন তোমার হল কবে ?
কবে গেলে বিস্মৃতিতে 
নতুন করে করে ডাকতে হবে ? 
তমিজ মিঞা , বীরপুরুষ সেই
ছোট থেকেই সঙ্গী আমার
যৌবনে তে অমল সুধা 
লবন্য আর অমিত কুমার ।
রঞ্জন ওই ফুল যে আনে 
নন্দিনীর ঐ রঙিন মনে 
গৌরমোহন সঙ্গে চারু
দীঘির পাড়ে কমল বনে ।
বিদায় বেলা ক্লান্ত যখন
অলস সময় বেয়ে
তোমার সাথেই হাঁটছি ঠাকুর
মেঠো পথে ধেয়ে
পঁচিশ তারিখ ভরদুপুরে
বোশেখ এলে নতুন করে
কেমন স্মরন  আড়ম্বরে? 
আসন যখন  হৃদয়পুরে ! . . . 


নিত্য রঞ্জন মণ্ডল 
দূরে আছ বলে 

আঁধারের স্বপ্ন দেখি সহজ করে শুধু দেখি
কাছে আছো বলে এত অবহেলা মনে হয়
দূরে থাকলে বলে এত কঠিন
এত ভালবাসা এত ছায়া
চাষ করা মাঠ সবুজের
পারিজাত মেঘলা দিনের আবগার আকাশ
চাঁদ তারা এত দূরে বলে
এত সুন্দর মনে হয় এত ভাল লাগে
এত প্রেম এত বৃষ্টি
তুমি দূরে আছো  বলে এত সুন্দর
সুন্দর মনের অহংকার
সাতরঙা আকাশ প্রাণের গান করে।




সুমিতা ঘোষ চক্রবর্তী
ছন্দ 
চলার পথে ক্লান্ত হলে 
তোমার অমল ঠোঁটের পাল তুলে দিও 
বেপরোয়া ঝড়ে ভালোবাসা র ইমারত গড়ে তুলো 
ফিসফিস গল্পের আলো ছায়া নেমে আসুক জীবন জুড়ে 
রেশমি ওড়নার মতন জীবনের উপকূল ধরে ভালোবাসা চিরন্তন  হোক।



লেখা  নাথ 

কুমারী প্রকৃতি রূপে মোহিনী,
যৌবনের ক্ষুরধার আবেদন
ইশারায় কাছে ডাকে।
চুপিচুপি পা ফেলে যেও,
ওই বনেতে বাঘ আছে,
গায়ের গন্ধ টের পায় না যেন।

অভীককুমার দে

ঘুমচোখের পাতায়

সূর্য ডুবে গেলে,
রোদ বিহীন শরীর 
রাতের কাছে... 

তথাপি আলো থাকে
ঘুমচোখের পাতায়,

মায়ারঙের ছায়া ধুয়ে মুছে
নদীটি বয়ে যায় কলকল... 



মালা চক্রবর্তী
জানে ?
 তাকে বলা হয়নি কখনো, 
তার চোখেই আমি সমুদ্রের অতল আহ্বান দেখি
চোরা স্রোতে ভেসে যাই— না নিয়েই তার সম্মতি।

ঝিনুক খোলে যে সামুদ্রিক জলছাপ থাকে 
তার চিবুকেই দেখি আমি জীবনের রৈখিক  মানে
 জানি না আজও,সে কি জানে!জানে!